ঢাকা, শুক্রবার, ৫ই জুন, ২০২০ ইং

শিরোনাম
প্রকাশ : মে ৮, ২০২০

বাকেরগঞ্জে পরকিয়ায় বাধা দেওয়ায় দুই ভাইকে কুপিয়ে জখম

অনলাইন ডেস্ক

তালাশ প্রতিবেদক বাকেরগঞ্জ ॥

বাকেরগঞ্জ পৌরসভা ৮ নং ওয়ার্ডে পরকিয়ায় বাধা দেয়ায় দুই যুবককে কুপিয়ে জখম করেছে সন্ত্রাসীরা। গতকাল ০৭/০৫/২০ইং তারিখ বৃহস্পতিবার রাত সাত টার দিকে বাকেরগঞ্জ পৌরসভা ৮নং ওয়ার্ডে এ ঘটনা ঘটেছে।

হামলার শিকার দুই চাচাত ভাই মোঃ জুয়েল সরদার(৩২) ও মোঃ সাদ্দাম সরদার (৩০) এবং রানী বেগম কে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। রানি বেগম এবং প্রতিবেশিরা অভিযোগ করেন, মোঃ শামীম মুন্সির নেতৃত্বে ৬-৭ জন সন্ত্রাসী তাঁদের বাড়ির মধ্যে ঢুকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে ওই দুই ভাইকে বেধড়ক কুপিয়েছে। এবং লোহার রড দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করেছে। যার রক্তে রাস্তা এবং বাড়ির মধ্যে প্লাবিত হয়ে গেছে।

তাঁরা জানান, এই শামীম মুন্সি দীর্ঘদিন ধরে বাকেরগঞ্জ পৌরসভা ৮ নং ওয়ার্ডের মৃত শাজাহান সরদারের স্ত্রী শাহনাজ বেগম এর সাথে বিভিন্ন সময়ে দেহ ভোগে মিলিত হয়। উল্লেখ্য শাহজাহান সরদার বিগত দুই বছর আগে মারা যাওয়ার পর থেকে এই শামীম মুন্সির সাথে চরিত্রহীনা নারী শাহনাজ বেগমের অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে। তাদের বাড়ির লোকজন বিভিন্ন সময়ে শাহনাজ বেগমকে বুঝিয়ে বলেছে যে তুমি এই শামীম মুন্সির সাথে যে সম্পর্ক করো তাতে আমাদের বাড়ির মান সম্মান নষ্ট হয়। কিন্তু শাহনাজ বেগম তার যৌবনের তাড়নায় কাউকেই মানে না। এবং সন্ত্রাসী শামীম মুন্সির ভয়ে কেউ কিছু বলতে পারেনা।

উল্লেখ্য শামীম মুন্সি তার পরকীয়া সম্পর্ক ধরে রাখতে শাহনাজ বেগমের ছেলের সাথে তার মেয়েকে বাল্যবিবাহ দেওয়ার জন্য আনুষ্ঠানিকতা কার্যক্রম সম্পন্ন করার চেষ্টা করছে।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর শামীম মুন্সি, শাহনাজ বেগমের বাসায় ঢুকতে গেলে প্রতিবেশি মহিলারা বাধা দেয়। এ নিয়ে মহিলাদের সঙ্গে শামীম মুন্সির কথা-কাটাকাটি হয়। শামীম মুন্সি তখন হামলাকারীদের খবর দেয়। সেখানে শাহনাজ বেগমের দুই ছেলে সজীব এবং রবি, এবং পাশের বাড়ির প্রতিবেশী ফরিদ, আউয়াল সরদার এরা ধারালো রামদা লোহার রড দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে।

এ ব্যাপারে মোসাম্মৎ রানী বেগম বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছে। বাকেরগঞ্জ থানার ওসি মো. আবুল কালাম বলেন, আমি দেখেছি দুই ভাইকে কুপিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এ ব্যাপারে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।


আপনার মন্তব্য